News Title: সুস্থ থাকতে প্রতিদিন কখন ও কতক্ষণ হাঁটবেন?

সুস্থ থাকতে হলে প্রতিদিন হাঁটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সকালে বা বিকালে হাঁটলে শরীরে খুব ভালো ব্যায়াম হয় এবং ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ বের হয়ে যায় ও রোগ প্রতিরাধ ক্ষমতা বাড়ে।

তবে আধুনিক জীবনযাপনের ফলে এখন দৈনন্দিন শারীরিক কার্যক্রম হচ্ছে না বললেই চলে। যার ফলে শরীরে বাসা বাঁধছে বিভিন্ন অসুখ-বিসুখ।
যেমন ডায়াবেটিস, উচ্চরক্তচাপ, আথ্র্রাইটিস, ওবেসিটি বা স্থূলতা, মাংসপেশির শক্তি কমে যাওয়া, অষ্টিওপোরোসিস বা হাড়ের ভঙ্গুরতা ইত্যাদি।

সুস্থ থাকতে হলে হাঁটার বিকল্প নেই। তবে এখন প্রশ্ন হলো– কখন ও কতক্ষণ হাঁটবেন?

কখন ও কত সময় হাঁটবেন

প্রতিদিন কমপক্ষে ৪০-৪৫ মিনিট হাঁটুন। এ ছাড়া যদি হাঁটতে ভালো লাগে তবে হাঁটার সময়টা ১ ঘণ্টা পর্যন্তও হতে পারে। যারা বেশি হাঁটতে পারেন না, তারা ওই ৪০ মিনিট হাঁটার সময়ে ১০ মিনিটের বিরতি দিতে পারেন। পাঁচ দিন ৩০ মিনিট করে ১৫০ মিনিট হাঁটলেও আপনি সুস্থ থাকবেন।

তবে কখনই ৩০ মিনিটের কম হাঁটা উচিত হবে না। সকালে বা বিকালে হাঁটা শরীরের জন্য ভালো।

হাঁটার গতি কেমন হবে

হাঁটার সময় অনেকে বুঝতে পারেন না যে, হাঁটার গতি কেমন হবে। তবে হাঁটার জন্য তেমন নির্দিষ্ট কোনো গতি নেই। প্রথমে ধীরে ধীরে হাঁটা শুরু করার পর আস্তে আস্তে গতি বাড়াতে হবে। শরীরের সঙ্গে তাল মিলিয়ে যতটুকু পারা যায় গতি বাড়াতে হবে।

লেখক: বাত-ব্যথা, প্যারালাইসিস রোগে ফিজিওথেরাপি বিশেষজ্ঞ, চেয়ারম্যান এবং চিফ কনসালট্যান্ট, ঢাকা সিটি ফিজিওথেরাপি হাসপাতাল, ধানমণ্ডি, ঢাকা।


News Title: করোনা: এ সময় নিরাপদে ভ্রমণ করতে করণীয়

সরকারি ছুটি শেষ হওয়ার পর দেশের মানুষের জীবনযাত্রা অনেকটাই স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে।

খুলেছে সরকারি-বেসরকারি অফিস ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান। এ ছাড়া বাস, ট্রেন, লঞ্চ ও বিমান চলাচল শুরু হয়েছে।

তবে এ সময় ভ্রমণ মোটেও নিরাপদ নয়। তবু জরুরি প্রয়োজনে ভ্রমণ করতে চাইলে মানতে হবে বাড়তি সতর্কতা।

স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে নিরাপদে ভ্রমণের কিছু পরামর্শ দেয়া হয়েছে।


১. এ সময় ভ্রমণে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার বিকল্প নেই। সংক্রমণ রোধে বাস, ট্রেন ও বিমান ভ্রমণে মানতে হবে সামাজিক দূরত্ব।

২. সঙ্গে থাকা ব্যাগ জীবাণুমুক্ত করতে হবে যানবাহন থেকে নেমেই।

৩. ব্যক্তিগত হ্যান্ড স্যানিটাইজার সঙ্গে রাখুন। বাসের আসন জীবাণুমুক্ত করার জন্য সঙ্গে রাখতে হবে জীবাণুনাশক স্প্রে।

৪. বাসের যে কোনো স্থান স্পর্শ করা থেকে বিরত থাকুন। এ সময় গ্লাভস পরবেন।

৫. বিমান ও ট্রেনের শৌচাগার খুব বেশি প্রয়োজন না হলে ব্যবহার করবেন না।

৬. হাত দিয়ে মুখমণ্ডল স্পর্শ করবেন না ও মুখ থেকে মাস্ক খুলবেন না। অন্য যাত্রীদের থেকে দূরত্ব বজায় রাখুন। চেষ্টা করুন জানালার পাশের আসনে বসার।

৭. বাইরের কেনা খাবার খাবেন না। বাসার তৈরি খাবার সঙ্গে রাখুন।


End of Today's News

পেঁপের বীজে এত গুণ!

পেঁপেকে পুষ্টির রত্নঘর বলা হয়। শিশুদের কাছে পছন্দের ফল না হলেও স্বাস্থ্য সচেতন ব্যক্তিদের কাছে এটি জনপ্রিয়। সাধারণত পাকা পেঁপে আমরা বীজ ও ছাল ফেলে খাই। কিন্তু অনেকের কাছে এটা অজানা যে পেঁপের বীজে রয়েছে উচ্চ পুষ্টিগুণ ও  প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদান। এটি ফ্লেভনয়েড ও পলিফেনরস এর উৎস, যা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং শরীরের বিকাশে সাহায্য করে। এ ছাড়া পেঁপের বীজে রয়েছে ফসফরাস,

[Continue Reading ...]

রূপচর্চায় নিমের যত ব্যবহার

ত্বকের যত্নে
ত্বকের যত্নে নিমপাতা অতুলনীয়। এটি ত্বকের ব্ল্যাকহেডস ও রোদে পোড়া দাগ দূর করে। এছাড়া ত্বক উজ্জ্বল ও সুন্দর করতেও নিয়মিত ব্যবহার করতে পারেন নিমপাতার ফেসপ্যাক।

 

  • মুঠোভর্তি নিমপাতা পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। ১ ঘণ্টা পর বেটে নিন। নিমের পেস্ট ১ ঘণ্টা ত্বকে লাগিয়ে রেখে ধুয়ে ফেলুন।
  • ৩টি তুলসি পাতা, ২টি নিম পাতা, ২টি পুদিনা পাতা ও ১টি লেবুর রস ম

    [Continue Reading ...]

ওজন কমানোর কার্যকর উপায় আসলে কোনটি?

ওজন কমানোর জন্যে স্বল্প সময়ের ব্যবধানে তীব্র শরীরচর্চা বা ব্যায়াম অনেক বেশি কার্যকর। এমনটাই দেখা গেছে একটি গবেষণায়। হাই ইনটেনসিভ ইনটারভেল ট্রেনিং বা হিট নামে পরিচিত এই শরীর চর্চার ফলে ওজন কমার হার দীর্ঘ সময়ের ব্যায়মের তুলনায় বেশি।
ব্রিটিশ জার্নাল অফ স্পোর্টস ম্যাগাজিনে প্রকাশিত এই গবেষণাটি ৩৬টি বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষার মাধ্যমে করা হয়েছে। গবেষণায় অংশগ্রহণক

[Continue Reading ...]

সব ভুলে যাচ্ছেন কেন?

বাড়ির ঠিকানা কিংবা বাজারের হিসাব, জরুরি কোনো কাজ এইমাত্র করবেন ভেবেও ভুলে যাচ্ছেন- এমন পরিস্থিতিতে পড়েছেন অনেকেই। বিশেষ করে প্রবীণরা এই সমস্যায় বেশি আক্রান্ত হন। যার জেরে খিটখিটে এবং অসহিষ্ণু হয়ে উঠছেন তারা। চিকিৎসা বিজ্ঞানের ভাষায় এই রোগের নাম স্মৃতিভ্রংশ (ডিমেনশিয়া)। ভুক্তভোগী অনেকে হলেও এই রোগের চিকিৎসার সুযোগ কিন্তু বিশেষ নেই। নারীদের চেয়ে পুরুষরা এই সমস্যা

[Continue Reading ...]

নাক ডাকা হতে পারে একটি ঘাতকব্যাধি

এপনিয়া- গ্রিক শব্দটির অর্থ শ্বাসহীনতা অর্থাৎ স্লিপ এপনিয়া বলতে বুঝায় ঘুমের ভেতর শ্বাস বন্ধ হওয়া। চিকিৎসা বিজ্ঞানের ভাষায়, ঘুমের মধ্যে যদি ১০ সেকেন্ড বা তার অধিক সময় নিঃশ্বাস সম্পূর্ণ বা আংশিক বন্ধ হয়ে যায় এবং সে কারণে রোগীর শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা ৩ শতাংশের বেশি নেমে যায়, তাকেই স্লিপ এপনিয়া বলে এবং ঠিক তখনি শ্বাসনালী দিয়ে বাতাস আদান প্রদান করতে ফ্যারিংসের উপর যে

[Continue Reading ...]